রবিবার, ১৮ অগাস্ট ২০১৯, ০৩:১৪ পূর্বাহ্ন

লালন ফকিরের ১২৬তম প্রয়াণ দিবসে এনবিআইইউতে আলোচনা ও সঙ্গীতানুষ্ঠান

লালন ফকিরের ১২৬তম প্রয়াণ দিবসে এনবিআইইউতে আলোচনা ও সঙ্গীতানুষ্ঠান

এনবিআইইউ প্রতিনিধি : মরমী সাধক লালন ফকিরের ১২৬তম প্রয়াণদিবস উপলক্ষে নর্থ বেঙ্গল ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির (এনবিআইইউ) সংস্কৃতি চর্চা কেন্দ্রের উদ্যোগে আলোচনা ও সঙ্গীতানুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। সোমবার  বিকেল ৩টায় রাজশাহী মহানগরীর আলুপট্টিস্থ বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক ভবনের সম্মিলন কক্ষে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। উক্ত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে আলোচনা করেন এনবিআইইউ’র উপাচার্য বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ প্রফেসর ড. আবদুল খালেক। সংস্কৃতি চর্চা কেন্দ্রের সভাপতি বরেণ্য কবি ও কথাসাহিত্যিক ট্রাস্টিবোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপিকা রাশেদা খালেক-এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রবন্ধ পাঠ করেন এনবিআইইউ উপ-উপাচার্য  প্রফেসর ড. মুহম্মদ আবদুল জলিল। আলোচনা করেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্কুল এন্ড কলেজের প্রভাষক ড. মোসা. নাসিমা খাতুন। সঙ্গীত পরিবেশন করেন প্রখ্যাত লোকসঙ্গীতশিল্পী রওশন আলম এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীশিল্পী নাসরিন নাহার, রেজওয়ানা শারমিন তৃণা, শাহিনা আকতার লতা এবং শিক্ষক হাফিজুর রহমান।

আলোচনা সভায় উপাচার্য বলেন-‘লালন মূলত একজন লোককবি। লালনের সংস্পর্শে না আসলে রবীন্দ্রনাথ রবীন্দ্রনাথ হয়ে উঠতেন কিনা, তা ভাববার বিষয়। লালন তার গানের মাধ্যমে প্রতিটি বাঙালিমনে চিরদিন বিরাজ করবেন।’

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় স্কুলের প্রভাষক ড. মোসা. নাসিমা খাতুন বলেন, ‘মানুষ মানুষের গুরু। দেহবাদ ও অধ্যাত্মবাদকে সমন্বয় করে সাধনার এক অনন্য উচ্চতায় পৌঁছান লালন সাঁইজি।’

সংস্কৃতি চর্চা কেন্দ্রের সভাপতি বরেণ্য কবি ও কথাসাহিত্যিক ট্রাস্টিবোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপিকা রাশেদা খালেক বলেন- ‘সাধন-ভজন মানুষকে মানুষ করে তোলে। আমাদের দেহ লীলা বৈচিত্র্যময়। ফলে আমরা নিজেই নিজের কাছে রহস্যময়। মহাকালের আত্ম অনে¦ষক সর্বশ্রেষ্ট সাধক লালন শাহ মানবতাবাদ ও অস্প্রদায়িক চেতনার এক অনবদ্য দৃষ্টান্ত। ২০০৫ ও ২০০৯ সালে ইউনেস্কোর ঘোষণার মাধ্যমে বাউল সম্রাট লালন শাহ এখন বিশ্বস্বীকৃত। রূপময় বৈচিত্র্য ও ঐন্দ্রজালিক রূপ সৃষ্টিতে লালন আমাদের দর্শনশাস্ত্রে মরমীভাব এনেছেন’

আলোচনা অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন সংস্কৃতি চর্চা কেন্দ্রের সহসভাপতি ও ট্রেজারার (অনারারি) প্রফেসর ড. পিএম সফিকুল ইসলাম। এছাড়াও ছাত্র উপদেষ্টা ড. মো. হাবিবুল্লাহ এবং সংস্কৃতি চর্চা কেন্দ্রের সাধারণ সম্পাদক ড. নূরে এলিস আকতার জাহান এর উপস্থাপনায় অনুষ্ঠানে কলা ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. এম ওয়াজেদ আলী, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক জোনাব আলী, প্রক্টর ড. মো. আজিবার রহমান, সহকারি প্রক্টর আবদুল কুদ্দুসসহ শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।


Share this post in your social media

© VarsityNews24.Com
Developed by TipuIT.Com